• ভোর ৫:০৬ মিনিট বুধবার
  • ২৯শে কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
  • ঋতু : হেমন্তকাল
  • ১২ই নভেম্বর, ২০১৯ ইং
এই মাত্র পাওয়া খবর :
নাঃগঞ্জ জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগে স্থান পেলেন সোনারগাঁয়ের সামসুজ্জামান ও দুলাল ভুল চিকিৎসায় রোগী মৃত্যুর সংবাদ প্রকাশ করায় সাংবাদিকদের দোষলেন মালিকরা দ্বীন ইসলাম হত্যার সঙ্গে জড়িত রাজুকে গনপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ ২ সন্তানের জননীকে ধর্ষণের ঘটনায় মামলা সোনারগাঁয়ের আওলাদ হোসেনের ১৪ বছরের কারাদন্ড কায়সার বাদে যুবলীগের ৪৭তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালন সোনারগাঁ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে বদলী সােনারগাঁয়ে সাহায্য দেওয়ার কথা বলে ২ সন্তানের জননীকে ধর্ষণের অভিযোগ সোহেল নামের এক যুবকের ২ মাসের কারাদন্ড সোনারগাঁ নয়াপুরে নাহিত ও রাজীব চোরের উপদ্রবে অতিষ্ট এলাকাবাসী স্ত্রীকে ভাগিয়ে নিয়ে গেলেন মেয়র, ভয়ে চুপ স্বামী পুলিশের সোর্স পুলিশ পরিচয় দিয়ে ২ যুবককে অপহরন করে অর্থ হাতিয়ে নেয়ার চেষ্টা রাজনীতি থেকে অবসর নেয়ার ঘোষনা দিলেন লিয়াকত হোসেন খোকা নারীদের ভোগ্যপণ্য বানাবেন নাঃ কবি লেখকদের উদ্দেশ্যে ড. সেলিনা সোনারগাঁয়ে ইয়াবাসহ আওয়ামীলীগ নেতা মুজিবুর আটক পিএসসি শিক্ষার্থীদের বিদায় ও এস এম সির কমিটির বরণ উপলক্ষে মিলাদ ও দোয়া সোনারগাঁয়ে সাংসদের উদ্যোগে মুক্ত আলোচনা কাঁচপুরে মোশারফ ওমর ঠেকাতে মাহবুব খাঁন সংঘাতের আশংকায় ওয়াজ মাহফিল বন্ধ করলো পুলিশ
সোনারগাঁয়ের মুক্তিযোদ্ধার বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাটের অভিযোগ

সোনারগাঁয়ের মুক্তিযোদ্ধার বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাটের অভিযোগ

নিউজ সোনারগাঁ২৪ডটকমঃ সোনারগাঁয়ের জামপুর ইউনিয়নে ভূমিদুস্যরা মরহুম কাজী হাবিবউল্লাহ ওরফে কাজী হবি নামে এক মুক্তিযোদ্ধার বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাট করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় রবিবার রাতে মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রী গোল চেহারুন বাদি হয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন।

অভিযোগে জানা যায়, মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে বিরোচিত অবদান রাখায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০১৮ সালে উপজেলার জামপুর ইউনিয়নের উত্তর কাজীপাড়া মৌজাস্থিত মহজমপুর কাজীপাড়া গ্রামে বীর মুক্তিযোদ্ধা কাজী হাবিবউল্লাহ ওরফে কাজী হবির জন্য একটি পাকা বিল্ডিং নির্মাণ করে দেন। ওই বিল্ডিংয়ের পাশে আরএস ১৯২, ১৯৩ ও ১৯৪ নং দাগে ৩৯ শতক জমি মুক্তিযোদ্ধা কাজী হবির পরিবার প্রায় শত বছর ধরে টিনের ঘর ও দোকানপাঠ নির্মাণ পূর্বক ভোগদখল করে আসছে। বিগত প্রায় ৮-১০ বছর পূর্বে স্থানীয় ভূমিদস্যু তাইজুদ্দিন ভূয়া দলিলের মাধ্যমে ওই জমি সিরাজ গংয়ের কাছে বিক্রি করে দেয়। এ ঘটনায় নারায়ণগঞ্জ বিজ্ঞ সোনারগাঁ সহকারি জজ আদালতে একটি মামলা (৩১৫/২০১৪) চলমান রয়েছে। মামলা চলমান থাকার পরেও গত রবিবার দুপুর আনুমানিক ১২টার দিকে ভূমিদুস্য তাইজুদ্দিনের নেতৃত্বে সিরাজ, আয়ত আলী ও নায়েব আলীসহ অজ্ঞাত ৪০/৫০ জন সন্ত্রাসী ধারালো অস্ত্র নিয়ে হামলা চালিয়ে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের মারধর করে এবং ঘর ও দোকানপাঠ ভাঙচুর ও লুটপাট করে। এ ঘটনায় রবিবার রাতে মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রী গোল চেহারুন বাদি হয়ে সোনারগাঁ থানায় লিখিত অভিযোগ করেন।

এ প্রসঙ্গে জামপুর ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার ওসমান গনী বলেন, স্থানীয় ভূমিদস্যুরা দীর্ঘদিন যাবত মুক্তিযোদ্ধা কাজী হবির পরিবারটিকে হামলা-মামলা দিয়ে হয়রানী করছে। ৩ নভেম্বর রবিবার দুপুরে তাদের বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাটের খরব শুনে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সাবেক সহকারি কমান্ডার মফিজুল ইসলাম খাঁন, মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হাই ভূঁইয়া ও সোহরাব উদ্দিন ভূঁইয়া সহ অন্যান্য মুক্তিযোদ্ধারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। আমরা এই ন্যাক্কারজনক ঘটনার সুষ্ঠ বিচার চাই।
মুক্তিযোদ্ধা কাজী হবির ছেলে কাজী জিয়াউর রহমান বলেন, ভুমিদস্যু তাইজুদ্দিন ও সিরাজ গং এ পর্যন্ত কয়েক দফা তাদের উপর হামলা ও বাড়িঘর ভাঙচুর লুটপাট করেছে। তাইজুদ্দিন নিজেকে যুবলীগ নেতা পরিচয় দেয় এবং উপজেলা আওয়ামীলীগের এক প্রভাবশালী নেতার নাম ভাঙিয়ে এই মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের উপর ৮/১০ বছর ধরে নির্যাতন চালিয়ে আসছে। গত কয়েক মাস পূর্বে সে আরেক মুক্তিযোদ্ধা ও নোয়াগাঁও ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান দেওয়ান উদ্দিন চুন্নুকেও মারধর করেছে। পরে এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়। মুক্তিযোদ্ধাদের উপর তার এই হিংস্র মনোভাবই প্রমাণ করে যে সে স্বাধীনতার বিপক্ষের বিএনপি-জামায়াতের সন্ত্রাসী।

সোনারগাঁ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান মুক্তিযোদ্ধার বাড়িঘর ভাঙচুর ও লুটপাটের ঘটনায় অভিযোগ প্রাপ্তির সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, বিষয়টি তদন্ত করে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এই নিউজটি শেয়ার করুন...

Website Design & Developed By MD Fahim Haque - Web Solution