• সকাল ৯:৫৭ মিনিট সোমবার
  • ৬ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  • ঋতু : গ্রীষ্মকাল
  • ২০শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
এই মাত্র পাওয়া খবর :
‘যারা আনারসে ভোট দিতে চান, কেন্দ্রে আইসেন, না দিতে চাইলে ঘরে থাইকেন’ বাবুল ওমরের হুমকি-ধামকিতে ভোটের মাঠে প্রভাব পড়েছে আনারস প্রতিকের সোনারগাঁয়ে চোরাই মোবাইলসহ সাতজন গ্রেফতার  আজ থেকে কালাম আমার পরিবারের একজন সদস্য আওয়ামীলীগ নেতা বিরুর বংশ উচ্ছেদের হুমকির ঘটনায় বাবুল ওমরকে শোকজ ঘোড়াকে জয়ী করতে নির্বাচনী মাঠে কাঁচপুরের খাঁন পরিবার ঘোড়ার পক্ষে যু্বলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কামাল হোসেনের উঠান বৈঠক উপজেলা আওয়ামীলীগের নীতি নির্ধারক সোহাগ রনি? সোনারগাঁয়ে গত ৯ দিন ধরে দুই সহোদর নিখোঁজ সোনারগাঁয়ে দুই কোটি টাকার ইয়াবা জব্দ, ১কারবারি গ্রেপ্তার আমান খাঁনের উদ্যোগে কাঁচপুরে কালামের নির্বাচনী প্রচারনা সভা আড়াইহাজারে নির্বাচনী আচারন বিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ হুইপ বাবুর বিরুদ্ধে আড়াইহাজারে নির্বাচনী আচারন বিধি লঙ্ঘন হুইপ বাবুর বিরুদ্ধে বন্দরের নতুন চেয়ারম্যান মাকসুদ চেয়ারম্যান নারায়ণগঞ্জ পল­ী বিদ্যুৎ সমিতির কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কর্মবিরতি পালন সোনারগাঁয়ে তিনদিন ব্যাপী ফায়ার সার্ভিসেরর স্বেচ্ছাসেবক প্রশিক্ষন সোনারগাঁয়ে আস্থা ফিডে সেনা প্রধান সোনারগাঁয়ে উপজেলা নির্বাচনে প্রার্থীদের মধ্যে প্রতিক বরাদ্দ সোনারগাঁও পৌরসভায় কালামের কেন্দ্র কমিটির সভা সোনারগাঁয়ে বিশ বছর পর বাকপ্রতিবন্ধী ভাইকে ফিরে পেলেন তার বড় ভাই
সোনারগাঁ সাহাপুর ব্রিজের মাঝখানের একাংশ ভেঁঙ্গে খালে

সোনারগাঁ সাহাপুর ব্রিজের মাঝখানের একাংশ ভেঁঙ্গে খালে

Logo


সোনারগাঁ সাহাপুর ব্রিজের মাঝখানের একাংশ ভেঁঙ্গে খালে

নিউজ সোনারগাঁ টুয়েন্টিফোর ডটকম: সোনারগাঁ উপজেলার বৈদ্যেরবাজার ইউনিয়নের সাহাপুর এলাকার ব্রিজের মাঝখানের একাংশ ভেঙ্গে গেছে। ব্রিজটির বাকি অংশের ফাটল ধরেছে। যে কোন সময় ভেঁঙ্গে যেতে পারে। গত দুদিন আগে একটি কোম্পানীর মালবাহী ট্রাক ব্রিজটির উপর দিয়ে পারাপার হওয়ার সময় ব্রিজটি ভেঁঙ্গে নিচে পড়ে যায়। তবে ভাগ্যভাল মালবাহী ট্রাকটি অল্পের জন্য বেঁচে যায়।

স্থানীয়রা জানান, প্রায় তিন যুগ আগে সেতুটি নির্মান করা হয়েছিল স্থানীয় লোকজনের চলাচলের জন্য। কিছু রড আর ইটের খোয়া দিয়ে কোন মতে সেতুটি নির্মাণ করা হয় স্থানীয়দের চলাচলের জন্য। সে জন্য ব্রিজটির নিরাপত্তার জন্য বানানো দুপার্শ্বের রেলিং অনেক আগেই খসে পড়ে গেছে। ফলে অনেকদিন ধরেই ব্রিজটি ঝুঁকিপুর্ন অবস্থায় দাড়িয়ে আছে। গত তিন বছর বৈদ্যেরবাজার ঘাটে মাসফিট ও মেরিন শিপইয়ার্ড নামের দুটি শিল্প প্রতিষ্ঠান নির্মান করা ফলে কোম্পানীর ভারি মালামাল পরিবহন কারণে ব্রিজটি দিনে দিনে আরো ঝুঁকিতে পড়ে। গত তিনদিন আগে কোম্পানীর মালামাল নেয়ার সময় হঠাৎ করে ব্রিজের মাঝখান দিয়ে (ঘাটে যেতে) উত্তর অংশের অনেকখানী ভেঁঙ্গে নিচে যায়। ভাগ্যক্রমে মালবাহি ট্রাকটি নিরাপদে ব্রিজটি পার হয়ে যায়। বর্তমানে ব্রিজটির মাঝখান দিয়ে ফাটার বড় চির ধরেছে। যে কোন সময় বাকি অংশ ভেঙ্গে নিচে পড়ে যেতে পারে। স্থানীয়রা ব্রিজটি ভাঙ্গা অংশে একটি কাপড় দিয়ে ভাঙ্গার অংশটি চিহৃিত করে দিলেও জীবনের ঝুঁকি নিয়ে এখনো ছোট ছোট যানবাহন চলাচল করছে।

স্থানীয় বাসিন্দা নারায়ণ জানান, তিনি জম্মের কয়েক বছর পর এখানে এ সেতুটি নির্মান করা হয়।এর আগে মানুষ সাকো দিয়ে খাল পারাপার হতো। মেঘনা নদীর কাছাকাছি হওয়ায় খালটিতে প্রচুর স্রোত ছিল কিন্তু বর্তমানে খালের মুখটি স্থানীয় দখলদাররা দখল করে দেয়ায় খালটি প্রায় মৃত অবস্থায় রয়েছে। বর্তমানে খালের উপর যে সেতুটি রয়েছে সেতুটি রয়েছে সেটি দিয়ে মেঘনা আড়াইহাজারসহ বিভিন্ন উপজেলার মানুষসহ কয়েক হাজার লোক চলাচল করে। গত কয়েক বছর ধরে স্থানীয় কোম্পানীর মালবাহি ট্রাক ও কভার্ডভ্যান চলাচল করার ফলে ব্রিজটি ঝুঁকিপুর্ন হয়ে উঠে। এছাড়া বহু বছর আগে ব্রিজটি নির্মাণ করায় তেমন মজবুত ভাবে সেতুটি তৈরী করা হয়নি। কোন মতো রড় আর ইটের খোয়া দিয়ে নির্মান করা হয়েছে। ফলে অনেক আগেই ব্রিজের দুপার্শের রেলিং ভেঙ্গে গেছে। তিনি দাবি করেন, ব্রিজটি বর্তমানের যে অবস্থায় রয়েছে তাতে যে কোন মুর্হুতে ভেঙ্গে বড় ধরনের দূর্ঘটনা ঘটতে পারে।


Logo

Website Design & Developed By MD Fahim Haque - Web Solution