• সকাল ৬:০৬ মিনিট শনিবার
  • ২৪শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
  • ঋতু : বর্ষাকাল
  • ৮ই আগস্ট, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
এই মাত্র পাওয়া খবর :
সোনারগাঁয়ে টোকাইদের কাছ থেকে চাঁদা দাবি, না পেয়ে হামলা ও মিথ্যা অভিযোগ সোনারগাঁয়ের বি সি এস ক্যাডারদের সংবর্ধনা সোনারগাঁয়ে পুর্ব শত্রুতার জের মা ও ছেলেকে কুপিয়ে জখম সোনারগাঁয়ে একদিনে ২ মহিলাসহ ৩ জনের দেহে করোনা সনাক্ত নয়াপুরে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা জাকির হোসেনের ব্যক্তিগত কার্যালয় উদ্বোধন ১৫ আগস্ট উপলক্ষে উপজেলা প্রশাসনের প্রস্তুতিমুলক সভা সোনারগাঁয়ে অন্তস্বত্তা নারীসহ ২জনকে পিটিয়ে আহত আড়াইহাজারে আওয়ামীলীগের দুই গ্রুপের সংর্ঘষে নিহত ১ সোনারগাঁয়ে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫০০ ছাড়াল সোনারগাঁয়ে একই পরিবারের ৫ জনকে পিটিয়ে জখম সোনারগাঁয়ে ২৫ হাজার ইয়াবাসহ আটক ৫জন, মাইক্রোবাস জব্দ সোনারগাঁ থানার ওসি বদলি আসছেন বন্দর থানার ওসি রফিকুল ঐতিহ্যবাহী কাইকারটেক হাটে টিকে আছে মাল টানার ঘোড়ার বাহন সোনারগাঁয়ে একদিনে সুস্থ ৪, মৃত্যু ২ ও আক্রান্ত ১, মোট আক্রান্ত ৪৯৭ সোনারগাঁয়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে স্কুল অধ্যক্ষের মৃত্যু সোনারগাঁয়ে এক ব্যক্তির অর্ধগলিত লাশ উদ্ধার বিনোদন কেন্দ্রগুলো বন্ধ থাকায় ভ্রমন পিয়াসুরা ঘুরতে মেঘনা নদীতে সোনারগাঁয়ে এক প্রসূতির তিন সন্তান প্রসব সোনারগাঁয়ে ঘুরতে এসে পরিবার নিয়ে ভীড় করছে পর্যটন কেন্দ্রের প্রবেশ দ্বারে আজ ঈদ, তাই আমরা মানুষ !
ভ্যাপসা গরমেই বাজারে শীতের সবজি

ভ্যাপসা গরমেই বাজারে শীতের সবজি

Logo

নিউজ সোনারগা৭২৪ডটকম: ভ্যাপসা গরমের মধ্যেই সোনারগাঁয়ের বাজারে চলে এসেছে শীতকালীন সবজি শিম ও গাজরসহ অন্যান্য সবজি। মৌসুম শুরুর বেশ আগে ভাগেই চলে আসা এ সবজি প্রায় সব বাজারেই দেখা গেলেও, দাম অনেকটা নাগালের বাইরে। বিভিন্ন বাজারে প্রতি কেজি শিম বিক্রি হচ্ছে ২০০ টাকায়।

শিমের পাশাপাশি চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে বেশিরভাগ সবজি। এর মধ্যে পাকা টমেটো ১৩০ টাকা ও গাজরের কেজি ১০০ টাকা ছুঁয়েছে। এছাড়া উস্তে ও বরবটির কেজি একশ টাকার কাছাকাছি। ৪০ টাকা কেজির নিচে মিলছে শুধু পেঁপে।

শুক্রবার সোনারগাঁয়ের মোগরাপাড়া চৌরাস্তা বাজার, আদমপুর বাজার, উদ্ধবগঞ্জ বাজার, কাঁচপুর, নিউটাউনের বিভিন্ন বাজার ঘুরে এমন তথ্য পাওয়া গেছে।

ব্যবসায়ীরা বলছেন, শীত আসতে এখনও অনেক সময় বাকি। তবে শীতের আগাম সবজি হিসেবে শিম ইতোমধ্যে বাজারে চলে এসেছে। আগাম বাজারে আসায় এ সবজিটির দাম একটু চড়া।

ব্যবসায়ীদের দাবি, যেকোনো সবজি বাজারে নতুন আসলে দিয়ে একটু বাড়তিই থাকে। তবে এবার শিমের দাম অন্যবারের তুলনায় বেশি।
মোগরাপাড়া চৌরাস্তা দেখা যায়, ব্যবসায়ীরা এক পোয়া (২৫০ গ্রাম) শিম বিক্রি করছেন ৪০ টাকায়। আর এক কেজি নিলে দাম রাখা হচ্ছে ১৬০ টাকা। একই দামে শিম বিক্রি হতে দেখা গেছে আদমপুর ও উদ্ধ্গঞ্জ বাজারে।
তবে খুচরা বাজারের তুলনায় কাঁচপুর বাজারে তুলনামূলক কম দামে পাওয়া যাচ্ছে শিম। মানভেদে বাজারটিতে এক পাল্লা (৫ কেজি) শিম বিক্রি হচ্ছে ৬০০-৭০০ টাকায়। অর্থাৎ প্রতি কেজি শিমের দাম পড়ছে ১২০-১৪০ টাকা। এছাড়া বাধাকপি প্রতিপিছ বিক্রি হচ্ছে ৩০-৩৫ টাকায়। ফুল বপি বিক্রি হচ্ছে ৩০-৩৫ টাকায়।
মোগরাপাড়া চৌরাস্তা বাজারের ব্যবসায়ী মিলন বলেন, নতুন আসার কারণে এখন শিমের দাম একটু বেশি। ধীরে ধীরে শিমের সরবরাহ বাড়লে দামও কমে যাবে। তখন অন্যান্য সবজির দামও কমে যাবে।

তিনি বলেন, শুধু শিম না, এখন সব সবজির দাম চড়া। কয়েক মাস ধরেই টমেটো ১০০ টাকার ওপরে কেজি বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া বেশ কিছু সবজির দাম ৬০ টাকার ওপরে। বাজারে শীতকালীন সবজি ভরপুর না আসা পর্যন্ত এই দাম কমার খুব একটা সম্ভাবনা নেই।

বিভিন্ন বাজার ঘুরে দেখা গেছে, পাকা টমেটোর কেজি বিক্রি হচ্ছে ১২০-১৪০ টাকায়। গাজর বিক্রি হচ্ছে ৮০-১০০ টাকা কেজি। উস্তের কেজি বিক্রি হচ্ছে ৭০-৮০ টাকায়। বরবটি বিক্রি হচ্ছে ৬০-৭০ টাকা কেজি। এ সবজিগুলো কয়েক সপ্তাহ ধরেই এমন চড়া দামে বিক্রি হচ্ছে।

চড়্া দামে বিক্রি হওয়া সবজির তালিকায় রয়েছে- পটল, ঝিঙে, ধুন্দল, চিচিংগা, বেগুন, কাকরল, ঢেঁড়স, লাউ। চিচিংগা, ঝিঙে, ধুনদলের কেজি বিক্রি হচ্ছে ৬০-৭০ টাকায়। পটল, কাঁকরোল বিক্রি হচ্ছে ৪০-৫০ টাকা কেজি। বেগুন বিক্রি হচ্ছে ৫০-৬০ টাকা কেজি। লাউ বিক্রি হচ্ছে ৬০-৭০ টাকা পিস।

চড়া দামের এই বাজারে কিছুটা কম দামে বিক্রি হচ্ছে পেঁপে ও মিষ্টি কুমড়া। পেঁপের কেজি পাওয়া যাচ্ছে ৩০-৩৫ টাকা। মিষ্টি কুমড়ার ফালি বিক্রি হচ্ছে ১৫-২০ টাকা।

এদিকে ২৫০ গ্রাম কাঁচামরিচ বিক্রি হচ্ছে ২০-২৫ টাকা। দেশি পেঁয়াজের বিক্রি হচ্ছে ৫০-৫৫ টাকা কেজি। আর আমদানি করা পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৪০ টাকা কেজি। ডিমের ডজন বিক্রি হচ্ছে ১০৫-১১০ টাকায়। আর সাদা বয়লার মুরগি ১৪০-১৫০ টাকা এবং লাল লেয়ার মুরগি ২০০-২১০ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে।

মোগরাপাড়া চৌরাস্তা থেকে নিয়মিত বাজার করেন আলেয়াা বেগম। তিনি বলেন, বাজারে সব সবজির দাম বেশি। এক পোয়া শিম চায় ৪০ টাকা। বলেন এটা কীভাবে সম্ভব! আমাদের মতো নিম্ন আয়ত্তের মানুষের পক্ষে এই দামে শিম কিনে খাওয়াা সম্ভব না। শুধু কি শিম? সব সবজির দাম বেশি। ৫০ টাকার নিচে কোনোটার দাম নেই। জিনিসের এমন দাম হলে আমাদের মতো নিম্ন আয়ের মানুষের কষ্ট হয়। কিন্তু যাদের টাকা আছে তাদের কোনো সমস্যা নেই।

Logo
এই নিউজটি শেয়ার করুন...

Website Design & Developed By MD Fahim Haque - Web Solution