• রাত ৮:১০ মিনিট শনিবার
  • ২রা মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
  • ঋতু : শীতকাল
  • ১৬ই জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
এই মাত্র পাওয়া খবর :
সোনারগাঁও পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডে কর্মীসভা মুজিবুরের নেতৃত্বে বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী নিয়ে মানববন্ধনে অংশ গ্রহন সজিবের নেতৃত্বে বিপুল সংখ্যক ছাত্রদল কর্মী নিয়ে মানববন্ধনে যোগদান জেলা বিএনপির মানববন্ধনে মান্নানের নির্দেশে বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মীর অংশগ্রহন এম্পায়ার স্টিল ইন্ডাস্ট্রিজ এর উদ্যোগে শীতবস্ত্র বিতরণ যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আলী হায়দার’র ছোট ভাইয়ের ইন্তেকাল সোনারগাঁয়ে নতুন করে ৪ জনের দেহে করোনা সনাক্ত বাদ আছর মহিউদ্দিনের জানাযা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন মজহমপুর একাদশ বিজয়ী হৃদয়ে-৯৮ ব্যাচের শীত বস্ত্র বিতরণ ঢাকা এ বছর পাচ্ছে না শৈত্যপ্রবাহের দেখা হঠাৎ থমকে গেছে সোনারগাঁও পৌরসভা কাঁচপুরে এক জনের দেহে করোনা সনাক্ত, মোট সনাক্ত ৭৯৮ নেতাদের নালিশের পর এড: সামসুল ইসলামকে এমপি মির্জা আজমের ফোন এ এক দুঃখী বালিকার অশ্রুঝরা গল্প পাঁচ হেলিকপ্টার বহনে সক্ষম বিশাল যুদ্ধজাহাজ সামনে আনল ইরান সোনারগাঁয়ে তাহুরা ইমতিয়াজ ফাউন্ডেশনের শীত বস্ত্র বিতরণ কাঁচপুরে শীতলক্ষা নদী থেকে অজ্ঞাত যুবকের লাশ উদ্ধার সোনারগাঁয়ে বালতির পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু সোনারগাঁয়ে আরো ১ জনের দেহে করোনা সনাক্ত, মোট সনাক্ত ৭৯৩
ছোটশীলমান্দীতে রাস্তার কারনে দুর্ভোগে পৌরসভার কয়েক গ্রামের মানুষ

ছোটশীলমান্দীতে রাস্তার কারনে দুর্ভোগে পৌরসভার কয়েক গ্রামের মানুষ

Logo


নিউজ সোনারগাঁ টুয়েন্টিফোর ডটকম:. সোনারগাঁও পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ডের ছোটশীলমান্দি গ্রামের রাস্তাটি দীর্ঘ দিন থেকে অবহেলিত ও উন্নয়ন বঞ্চিত। দীর্ঘ প্রায় ১৮ বছরেও কোন উন্নয়ন বা সংস্কার হয়নি বলে অভিযোগ গ্রামের বাসিন্দাদের। ঢাকা চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে এবং উপজেলার তিনটি ইউনিয়ন তথা মোগড়াপাড়া, সনমান্দি ও পৌরসভার সংযোগ সড়ক হওয়ায় সড়কটি অন্তত ১০-১২টি গ্রামের মানুষের জন্য খুবই গুরুত্বপুর্ন। তাছাড়া ঢাকা চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে নতুন নতুন শিল্প কারখানা ও শিল্পাঞ্চল গড়ে ওঠায় মানুষের যাতায়াত বেড়েছে বহুগুন। কিন্তু রাস্তাটি এখনো কাঁচা হওয়ায় কোন প্রকার যানবাহন এমনকি রিকশাও চলাচল করতে পারেনা। বর্ষাকালে রাস্তা ব্যবহারকারীদের পোহাতে হয় দূর্ভোগ। সামান্য বৃষ্টিতেই রাস্তায় বিভিন্ন অংশে গর্তের সৃষ্টি হয়ে পানি জমে থাকে। তখন হাটা চলার ও জো থাকেনা। ছোটশীলমান্দি গ্রামের বাসিন্দা হাফেজ মোক্তার হোসেন বলেন, রাস্তা না থাকায় প্রতিদিনই অনেক ভোগান্তি হয়। বাজার সদাই এমনকি ছোটখাটো মালামাল আনতেই অনেক কষ্ট করতে হয়। গ্রামের বাসিন্দা মোখলেসুর রহমান চ্যানেল আইকে বলেন, সবচেয়ে বেশি ভোগান্তিতে পড়তে হয়, কেউ অসুস্থ হলে। হাসপাতালে নেওয়ারও কোন উপায় নেই, রোগীকে পাজাকোলে করে অথবা হেটে মুল রাস্তায় নিয়ে যেতে হয়। অথচ ঢাকা চট্টগ্রাম মহাসড়কের সংযুক্ত এই সড়কটি। জনপ্রতিনিধিদের অবহেলার কারনে এত বছরেও এই রাস্তাটি পাকা হয়নি। গ্রামের বাসিন্দা সাংবাদিক আকতার হাবিব বলেন, ছোটশীলমান্দির এই রাস্তাটির র্দৈঘ্য প্রায় দের কিলোমিটার। বৃটিশ আমল থেকেই রাস্তাটি সরকারি হালট রয়েছে প্রায় ১২ ফুটের বেশি। ২০০১ সালে সর্বশেষ রাস্তাটিতে মাটি ভরাট করা হয় এরপর এত বছরেও আর কোন উন্নয়ন বা সংস্কার কাজ হয়নি। এক রাস্তার কারনে আটকে আছে সব উন্নয়ন কাজ। দোকানদার, জুয়েল মিয়া বলেন, রাস্তা না থাকার কারনে দিন দিন অনেকেই বাড়ি বিক্রি করে অন্যত্র চলে যাচ্ছে। গ্রামের একটি অংশের প্রায় অর্ধেক বাড়ি ঘর ও জনসংখ্যা কমে গেছে। চৈতি কম্পোজিট নামের শিল্প কারখানার কাছে বাড়ি বিক্রি করে অনেকেই দেশান্তরি হতে বাধ্য হয়েছে। গ্রামের বাসিন্দা দেলোয়ার হোসেন বলেন, আমরা পৌরসভার ভোটার হিসেবে সব সময় নিয়মিত ট্যাক্স দিয়ে আসছি। অথচ আমরা কোন নাগরিক সুবিধাই পাইনা। অতীতে বহুবার পৌরসভার মেয়রসহ স্থানীয় এমপি রাস্তাটি করে দিবেন বলে কথা দিয়েছেন। কিন্তু কথা কাজের বাস্তবায়ন হয়নি ।

Logo

Website Design & Developed By MD Fahim Haque - Web Solution