• সকাল ১০:১৬ মিনিট শনিবার
  • ১লা আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  • ঋতু : বর্ষাকাল
  • ১৫ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
এই মাত্র পাওয়া খবর :
নাছির মেম্বারের পথে ছেলে রাসেল, তাকে রুখার সাধ্যকার সোনারগাঁয়ের চাঞ্চল্যকর রাব্বি হত্যা মামলার ২ আসামি গ্রেফতার মেঘনা টোল প্লাজায় তিশা বাসে আগুন বন্দরে বকেয়া বেতনের দাবিতে ২ ঘন্টা মহাসড়ক অবরোধ,  সোনারগাঁয়ে ৩ মিষ্টির দোকানকে ১৫ হাজার টাকা জরিমানা সোনারগাঁয়ে নদী থেকে অজ্ঞাত লাশ উদ্ধার সোনারগাঁয়ে মাদকের টাকা লেনদেনের জেরে এক যুবককে কুপিয়ে হত্যা বিশ্ব পরিবেশ দিবস উপলক্ষে সোনারগাঁও প্রেস ক্লাবে আলোচনা সভা সোনারগাঁয়ে আ.লীগ নেতার প্রতারণার নতুন ফাঁদ অনিয়ম ও দূর্নীতি যেন সমাজ ব্যবস্থায় স্বাভাবিক ঘটনা. জিএম কাদের কাল থেকে শ্রী শ্রী লোকনাথ ব্রহ্মচারীর ১৩৪ তম তিরোধান উৎসব শুরু সোনারগাঁয়ে ডিম ছিনতাইয়ের ঘটনায় গ্রেপ্তার ২ সোনারগাঁ উপজেলা নির্বাচনীকে কেন্দ্র করে ঘোড়া প্রতিকের সমর্থকের পুকুরে বিষ প্রয়োগ সোনারগাঁ উপজেলা নির্বাচনীকে কেন্দ্র করে ঘোড়া প্রতিকের সমর্থকের পুকুরে বিষ প্রয়োগ সোনারগাঁয়ে অ্যাম্বুলেন্স দূর্ঘটনার নিহত -১ উপজেলা নির্বাচনে ঘোড়া প্রতিকের নির্বাচন করায় গাছ কর্তন নব নির্বাচিতত উপজেলা চেয়ারম্যানকে নিয়ে এতিমদের দোয়া সোনারগাঁয়ে ট্রান্সফরমার চুরির সময় স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতাসহ আটক-৪ হাসনাত পরিবারের প্রয়াত নেতাদের কবর জিয়ারত করলেন নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান তুমি যদি মুমিন হও তাহলে নিরাশ হইওনা. নব নির্বাচিত চেয়ারম্যান
করোনাঃ মায়াবী দৈত্য…জোবায়দা নাছরীন

করোনাঃ মায়াবী দৈত্য…জোবায়দা নাছরীন

Logo


মায়াবী দৈত্য – শিশু আমি ছুটে চলি অনির্দ্দেশ অনর্থ সন্ধানে জন্মিয়াছি হেরিণু, মোরে ঘিরি ক্ষতির অক্ষৌহিণী সেনা প্রণমি বন্দিল – প্রভু তব সাথে আমাদের যুগে যুগে চেনা মোরা তব আজ্ঞাবহ দাস- প্রলয়, তুফান, বন্যা, সড়ক দুর্ভিক্ষ মহামারী সর্বনাশ। (কাজী নজরুল ইসলাম) মায়াবী এই পৃথিবী মাতৃকোলের মতই নিরাপদ। আমরা মনুষ্য জাতি। আমাদের চাওয়া এবং পাবার হিসেব কখনোই কেন জানিনা মিলেনা। অন্ন, বস্ত্র, বাসস্থান, শিক্ষা, চিকিৎসা, বিনোদন ছাড়াও আমাদের আরেকটি মৌলিক চাহিদা আছে তা হলো ক্ষমতা প্রয়োগ যাকে ইংরেজি পরিভাষায় বলে পাওয়ার এপ্লাই। এটাকে মৌলিক জৈবিক চেতনা বলা যেতে পারে। অসহায় এবং বিণীতদের উপর এই ক্ষমতা প্রয়োগের লিপ্সা মানুষের আদিম স্বভাবজাত। দেশ নাই, জাতি নাই, ধনী দরিদ্র প্রায় সবাই এই ক্ষমতা প্রয়োগের ক্ষেত্রে সমভাবাপন্ন। এর ফলে মানব হয়ে পড়ে অমানবিক বর্বর। এই বর্বরদশার অনেক নিদর্শন রয়েছে ধরাধামে। অতি সাম্প্রতিক সময়ের দু একটি উদাহরণ দেয়ার প্রয়োজন মনে করছি। সিরিয়া, ফিলিস্তিন, আফগানিস্তান, ইরাক পৃথিবীর এক একটি ধ্বংসস্তুপ। অনেক কিছুই মনে করিয়ে দেয়। আহা…. একটি শিশু বলেছিলো আমি সবকিছু আল্লাহর কাছে বলে দিব। হৃদয়টা কেঁপে উঠে। আরো অনেক কিছুই মনে পড়ে আজ। শান্ত, নিশ্চিত নিরাপদ পৃথিবী কেমন অস্থির হয়ে উঠেছিল। এমন মনে হয়েছিল মায়ের কোলের শিশুটি মাকে হত্যা করার জঘন্য কাজে লিপ্ত হয়েছে আর তীব্র হিংস্র হাসির উল্লাসে ফেটে পড়ছে আর বলছে……… “হাহাহা আমাকে বিশ্বাস করে আগলে রেখে ভুল করেছো মাতা তোমাকে ধ্বংস করে আনবোই ঘরে তোলে বিমাতা। ” গোপন অশ্রুসিক্ত নয়ন মাতৃরূপিনী বসুন্ধরার। মানবের হুশ ফিরিয়ে দেয়ার কামনা প্রকৃতির কাছে। প্রকৃতি কিন্তু চুপ রইলো না, মায়ের কান্না সে সইতে পারলো না। পাঠিয়ে একদল মুকুটরূপের অস্ত্র। মানুষ করার অমোঘ অস্ত্র। অদৃশ্য একটা ভাইরাস ক্ষুদ্রাতিক্ষুদ্র অনুজীব। চ্যালেঞ্জ দিয়ে দিল মানব শিশুকে “এবার তোরা মানুষ হ”। মেদিনীমাতা স্তব্ধ।মাত্র কয়েকদিনের ব্যবধানে বর্বরোচিত উল্লাস বন্ধ হয়ে গেল, বন্ধ হয়ে গেল যুদ্ধের দামামা। জাত নাই, ধর্ম নাই ধনী দরিদ্র নাই সকলেই মানবতার ছত্রতলে। পারমানবিক শক্তিশালী দেশগুলো আজ সুবোধ বালকের মতো গৃহকোণে অবস্থান করছে। শত ব্যস্ততায় যারা পরিবারকে ভুলতে বসেছিল কয়েকটা দিনে পারিবারিক জীবন যাপন করছে। আর এদিকে মাতৃরূপা পৃথিবী সচ্ছতা ফিরে পেয়ে যেন নিরাপদ নিঃশাস নিচ্ছে। কারখানার কালো ধোঁয়া নাই, বর্জ্য নাই, মানুষ হত্যা নাই, নদীর বুকে অত্যাচার নাই, রাস্তায় ট্রাফিক নাই, সাগরতীরে অযাচিত অশোভন প্রবেশ নাই, টাকার বড়াই নাই, আকাশে চড়াই নাই, মানুষের রাজত্ব নাই।প্রকৃতির রাজত্বে আমরা প্রজা। এটাই সত্য। কবির ভাষায় অসাধারণ চিত্রকল্প………………….. ঐ দ্যাখো ঝাঁকে ঝাঁকে ফিরিতেছে, লালরঙা কাঁকড়ারা সাগরতীরে। সাগরলতারা সবুজ নকসীকাঁথা বুনিতেছে, নবানন্দে নির্ভয়ে বিস্তৃত বালুচরে। আনন্দে জলকেলি করিতেছে আসিয়া কাছে, অভিমানে দুরে থাকা সোহাগি ডলফিন। শামুক ঝিনুকেরা দমকে দমকে হরষে হাসে, মাছেরা ফুলকা নাড়িয়া কহে ফিরিতেছে দিন। বিশ্বময় বাতাস বলয় হইতেছে ধুলি সীসা দূষণ বিষহীন, পাখিরা মেলিতেছে মুক্ত ডানা পাইয়া আকাশ অমলিন। গাছেরাও কহিতেছে কথা নব আহলাদে, বিটপে কিশলয়ে শাখায় পাতায়। নবজাগরণে উঠিয়াছে মাতি বহুকাল বাদে, ধরণী সাজিতেছে সবুজ স্নিগ্ধতায়। অতি ক্ষুদ্র অদৃশ্য অভিশপ্ত অনুজীব ভাঙ্গিয়াছে আজি বিভেদের দেয়াল, বলিতেছে, দাঁড়াও এক কাতারে, যদি চাও বাঁচিবারে, প্রকৃতির প্রতি দাও খেয়াল। উম্মত্ত অহং দম্ভ দর্প আজি চূর্ণ করিয়া, লাগাম টানো বেহিসেবী ভোগ বিলাসিতায়, টেকসই জগতের রুপকল্প-পথ বাহিয়া, মানবতা টানিয়া লও সাম্যের নতুন সভ্যতায়। (সাম্যের নতুন সভ্যতায় : ড. মোঃ জাহেদুল হাসান ঢাকা, ০৩ এপ্রিল ২০২০ খ্রিঃ) আমরা আশাবাদী। শারীরিকভাবে দূরত্ব বজায় রাখতে পারলে আমরা এই মরণথাবা করোনা থেকে মুক্তি পাব। সেই দিনের প্রতীক্ষায় আমরা অপরাধী ধরণী শিশু। সবাই ঘরে থাকুন সচেতন থাকুন নিরাপদ থাকুন।

সহকারী অধ্যাপক

জোবায়দা নাছরীন

বাংলা গার্হস্থ্য অর্থনীতি কলেজ আজিমপুর।


Logo

Website Design & Developed By MD Fahim Haque - Web Solution