• সকাল ৬:৪৪ মিনিট শনিবার
  • ২৩শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
  • ঋতু : গ্রীষ্মকাল
  • ৬ই জুন, ২০২০ ইং
এই মাত্র পাওয়া খবর :
সোনারগাঁয়ে ২৪ ঘন্টায় করোনা আক্রান্ত নেই দুধঘাটা ও পাঁচানী সড়কে বৃষ্টি হলেই বন্যা ! মুক্তিযোদ্ধা মনোয়ার হোসেনের মৃত্যুতে উপজেলা বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের শোক বীর মুক্তিযোদ্ধা মনোয়ার হোসেনকে রাষ্টীয় মর্যাদায় শেষ বিদায় জানালেন ইউএনও সাইদুল ইসলাম বৈরী আবহাওয়ায়ও লক ডাউন পরিবারে পৌছে যাচ্ছে এমপি খোকার খাবার সোনারগাঁয়ে ২দিনে করোনা আক্রান্ত সংখ্যা গড়ে সাড়ে ৩৮% সোনারগাঁয়ে সড়ক দুর্ঘটনায় পুলিশ সদস্য নিহত সোনারগাঁয়ে একদিনে সর্বোচ্চ ৬৩ জনের মধ্যে ২৮ জনের দেহে করোনা সনাক্ত সোনারগাঁয়ে করোনা ও উপসর্গ নিয়ে ১৫ জনের মৃত্যু, মৃত্যুর কারণ গোপন করছে পরিবার মৃত ব্যক্তির দেহে কতক্ষণ সক্রিয় থাকে করোনা ভাইরাস প্রধানমন্ত্রীর উপহার অসহায়দের পৌছে দিলেন চেয়ারম্যান ইঞ্জি: মাসুম সোনারগাঁয়ে মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামুলক নয়তো জরিমানা সোনারগাঁয়ে ৭৫ জনের মধ্যে ২৫ জনের দেহে করোনা সনাক্ত, মোট সনাক্ত ২৩৮ জান্নাতি ও জাহান্নামিদের মাঝে কথোপকথন!.. তুহিন মাহমুদ করোনার উপসর্গ নিয়ে মৃত ব্যক্তিদের দাফনের ব্যবস্থা করলেন এমপি খোকার টিম বারদীতে করোনা উপসর্গ নিয়ে ২ ব্যক্তির মৃত্যু লোকনাথ ব্রহ্মচারীর ১৩০ তিরোধান উৎসব স্থগিত সোনারগাঁয়ে করোনার উপসর্গ নিয়ে মেয়ের পর মায়ের মৃত্যু প্রাণচাঞ্চল্য ফিরে এসেছে সোনারগাঁয়ে সোনারগাঁয়ে জিয়াউর রহমানের মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া ও ত্রাণ বিতরণ
তবুও জীবন যাচ্ছে কেটে জীবনের নিয়মে…. রবিউল হুসাইন

তবুও জীবন যাচ্ছে কেটে জীবনের নিয়মে…. রবিউল হুসাইন

Logo

করোনা প্রার্দুভাবের কারণে মানুষ এখন অনেকটাই গৃহবন্দি। বিশ্ববাসী এর আগে এ ধরনের পরিস্থিতিতে পড়েছে কিনা তা জানা নেই। কবে এ সমস্যার সমাধান হবে তাও অনিশ্চিত। ছোট বেলা থেকেই বইপত্রে পড়ে আসছি মানুষ সামাজিক জীব তাই একে অপরকে ছাড়া চলতে পারে না। কিন্তু করোনা এসে আমাদেরকে শিখিয়ে দিয়ে গেল বেঁচে থাকতে হলে মানুষের সঙ্গ ত্যাগ করে একলা চলতে হবে। এ এক নতুন অভিজ্ঞতা। কোথাও কোন জনসমাগম নেই, আড্ডার স্থানে নেই আড্ডাবাজদের আনাগোনা, সামাজিক, সাংস্কৃতিক কিংবা ধর্মীয় কোন উৎসব পালনের বাহুল্যতা নেই। এবার করোনার কারণে অনেক গুলো উৎসবই নিরবে নিভৃতে চলে গেছে। যেমন রাষ্ট্রীয় উৎসব স্বাধীনতা দিবস ও সাংস্কৃতিক উৎসব পহেলা বৈশাখ। এছাড়া সামনে আসছে ধর্মীয় উৎসব ঈদুল ফিতর এটাও অনাড়ম্বর ভাবেই চলে যাবে বুঝা যাচ্ছে। এসব বৃহৎ উৎসব ছাড়াও ছোট খাটো আরো কতশত উৎসব রয়েছে তা বলাই বাহুল্য যেমন বিয়ে, বৌভাত, জন্মদিন, বিয়েবার্ষিকী, সুন্নতে খাতনা, কুলখানী, ইফতার পার্টি ইত্যাদি। চাইলেও ছোট কিংবা বড় কোন উৎসব আয়োজনই এখন করা যাচ্ছে না। কারণ একটাই করোনার ভয়। করোনা পরিস্থিতিতে চারিদিকে যখন সমস্যা আর সমস্যা তখন জীবনের দিকে যদি আমরা ফিরে তাকাই তাহলে দেখতে পাবো মানুষের জীবন কিন্তু থেমে নেই। নদীর স্রোতের মতো বয়ে যাচ্ছে জীবন। স্বাধীনতা দিবস পালন করা হয়নি কিংবা পহেলা বৈশাখে নাচ গান মঙ্গল শোভা যাত্রা করা হয়নি তাতে জীবনের বিন্দুমাত্র যায় আসে না। ঈদে শপিংয়ের বাড়াবাড়ি কিংবা বিনোদন কেন্দ্রগুলোতে মানুষের উপচে পড়া ভীড় সবকিছুই জীবনের কাছে অর্থহীন। আসলে কোন উৎসব পালনই মানুষের বেঁচে থাকার জন্য অনিবার্য নয় করোনা এ শিক্ষাই আমাদের দিচ্ছে । যারা ছোট কিংবা বড় উৎসব পালন নিয়ে নিজেদের ঘুম হারাম করতেন তারা একটু ভেবে দেখুন এসব ছাড়াও জীবন চলছে। অপরদিকে যারা অর্থের নেশায় দিনরাত ব্যস্ত ছিলেন, পরিবারকে এক মিনিট সময় দিতে পারেননি তারাও আজ দিনের পর দিন কাটাচ্ছেন পরিবারের সাথে। যাদের হাতে অঢেল সম্পদ তারাও এ করোনার কাছে আজ অসহায়, যারা প্রবল ক্ষমতাবান তারাও করোনার কাছে নিঃস্ব। মূল বিষয়টি হচ্ছে এ নশ্বর পৃথিবীতে সবকিছুই অর্থহীন। জীবনের কাছে কোন কিছুই গুরুত্বপূর্ন নয়। করোনা পরিস্থিতিতে আমরা যদি এ শিক্ষা অর্জন করে আগামীর পৃথিবীতে নতুন করে পথচলা শুরু করি তাহলে হয়তো পৃথিবীটা আরো বেশী সুন্দর ও মানবিক হবে। দিন শেষে পৃথিবীর বাহ্যিক জৌলুস আসলে ঝরে পড়া ফুল। যার কোন মূল্য নেই। আমরা যেই যা করি না কেন বিধাতার দেয়া একটি মাত্র জীবনকে ভাল কাজে না লাগাতে পারলে এর চেয়ে দূর্ভাগ্য আর কি হতে পারে। জীবন  ক্ষণস্থায়ী সুতরাং জীবন কেটে যাচ্ছে জীবনের নিয়মে আপনি জীবনের জন্য কি করছেন?

লেখকঃ সম্পাদক ও প্রকাশক, চারদিক
সোনারগাঁ প্রতিনিধি, দৈনিক দেশ রূপান্তর

Logo
এই নিউজটি শেয়ার করুন...

Website Design & Developed By MD Fahim Haque - Web Solution