• সকাল ১০:৫০ মিনিট সোমবার
  • ৯ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
  • ঋতু : হেমন্তকাল
  • ২৫শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
এই মাত্র পাওয়া খবর :
সোনারগাঁয়ে ১ জনের দেহে করোনা সনাক্ত পিরোজপুর ইউপি’র উন্নয়নে নিজেকে বিলিয়ে দিবো.. ইঞ্জি: মাসুম নতুন পুরাতনের সমন্বয়ে ইউপি নির্বাচন, প্রতি ইউপিতে বিদ্রোহীদের সম্ভবনা কলেজ সরকারি করার দাবিতে মানববন্ধন করেন সোনারগাঁয়ে ১১ জনের নমুনায় কারো দেহে করোনা সনাক্ত হয়নি। নিউজ সোনারগাঁ সোনারগাঁয়ে ৮ ইউপিতে নৌকা পেলেন যারা ধামগড়ে নৌকার মাঝি চেয়ারম্যান মাসুমের পক্ষে গণজোয়ার রূপগঞ্জে নাতিনকে ধর্ষনের পর হত্যার অভিযোগ নানার বিরুদ্ধে স্মার্টফোন কেনার জন্য স্ত্রীকে বৃদ্ধের কাছে বিক্রি সোনারগাঁয়ে ১লাখ মিটার জাল জব্দ তিন জনকে জরিমানা এক বছরের কারাদণ্ড এড়াতে প্রায় ২৩ বছর আত্মগোপনে অনৈতিক সুবিধা নিয়ে প্রার্থীর তালিকা, প্রধানমন্ত্রী কাছে সাবেক এমপি’র নালিশ সোনারগাঁয়ে নতুন করে ১ জনের দেহে করোনা সনাক্ত সোনারগাঁ মদ্যপানে যুবকের মৃত্যু সন্তানকে বাঁচাতে কুমিরকে পিষে দিল হাতি, ভিডিও ভাইরাল মনোনয়ন টেনশনে নৌকা প্রার্থীরা ব্রিটেন যাচ্ছেন মিজানুর রহমান আজহারী মুশফিক-লিটনকে নিয়ে কোনও প্রশ্ন নেই দলে পূজামণ্ডপে কোরআন রাখার কথা ‘স্বীকার করেছেন’ ইকবাল সোনারগাঁয়ে ফেনসিডিলসহ আটক ৪
সোনারগাঁয়ে তেল ও পিয়াজসহ বেড়েছে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের দাম

সোনারগাঁয়ে তেল ও পিয়াজসহ বেড়েছে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের দাম

Logo


নিউজ সোনারগাঁ টুয়েন্টিফোর ডটকম: হঠাৎ করে সারা দেশের ন্যায় সোনারগাঁয়ের বাজারগুলোতে বেড়েছে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস পত্রের দাম। কয়েক দিনের ব্যবধানে তেল, পিয়াজ, আটা, চিনিসহ বেড়েছে অন্যান্য জিনিস পত্রের দাম। হঠাৎ করে দ্রব্যমুল্যের দাম বেড়ে যাওয়ায় বিপারে পড়েছেন নিম্ন আয়ের মানুষ।

শুক্রবার সকালে উপজেলার সবচেয়ে বৃহত্তম বাজার মোগরাপাড়া চৌরাস্তার নিত্য প্রয়োজনীয় দোকানগুলোতে ঘুরে দেখা যায়, সয়াবিন তেল প্রতি কেজিতে ১০ টাকা বেড়ে ১৫০ টাকা, সরিয়ার তেলে প্রতি কেজিতে ৩০টাকা বেড়ে ২০০ টাকা, মশারীর ডাল প্রতি কেজিতে ৩০টাকা বেড়ে ১৮০ টাকা, প্রতি কেজি চিনিতে ১০টাকা বেড়ে ৮০ টাকা, আটা প্রতি কেজিতে ১০ টাকা বেড়ে ৪০ টাকা হয়েছে। এছাড়া এগুলোর সাথে বেড়েছে অন্যান্য জিনিসের দাম।

বাজার করতে আসা ইব্রাহিম জানান, তিনি পেশায় একজন চাকরীজীবি। মাস শেষে বেতন পেয়ে এক সাথে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র কিনে রাখেন। কিন্তু মাসের শেষে হঠাৎ করে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম বেড়ে যাওয়ায় বিপাকে পড়েছেন তিনি। সে জন্য আগে যা কিনতেন তার চেয়ে কমিয়ে জিনিসপত্র কিনছেন। এর মধ্যে দাম যদি জিনিস পত্রের দাম কমে তাহলে পরে অবশিষ্ট জিনিসপত্র কিনবেন।

নিত্য প্রয়োজনীয় দোকানের মালিক মো. আবেদ জানান, বাজারে সকল জিনিসের সরবরাহ রয়েছে আগের মতোই তারপরও কেন হঠাৎ করে দ্রব্য মুল্যের দাম বাড়লো সেটা আমাদের বোধগম্য নেই। হঠাৎ করে দ্রব্য মুল্যের দাম বেড়ে যাওয়ায় ক্রেতাদের কৈইফত দিতে দিতে গলা শুকিয়ে যায়। এছাড়া ক্রেতারা দাম বেড়ে যাওয়ায় বেচাবিক্রিও কমে গেছে।

পিয়াজ ব্যবসায়ী রিপন জানান, গত কয়েকদিন ধরে পিয়াজের দাম বেড়ে গেছে প্রতি কেজিতে ৩০টাকা। ঢাকার বাজারগুলোতে ৩০টাকা বেশিতে বিক্রি করছে। কিন্তু আমরা আগের কিছু পিয়াজ গুডাউনে থাকায় ১০টাকা কমিয়ে ৬০ টাকা ধরে বিক্রি করছি।তবে পিয়াজের দাম বেড়ে যাওয়ায় আগের তুলনায় বেচাবিক্রিও  কম। তিনি জানান, ঢাকার আড়ৎদাররা বাজারের পিয়াজের ক্রাইসিস দেখিয়ে দাম বাড়িয়েছে। সেজন্য সবাই দামে কিনে দামে বিক্রি করছে।


Logo

Website Design & Developed By MD Fahim Haque - Web Solution