• সন্ধ্যা ৬:০৮ মিনিট রবিবার
  • ৫ই বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
  • ঋতু : গ্রীষ্মকাল
  • ১৮ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
এই মাত্র পাওয়া খবর :
ফেলা যাওয়া টাকা ও টুপির মালিককে খুঁজছে ফার্মেসী মালিক সোনারগাঁয়ে ভেজাল খাদ্য তৈরির দায়ে গ্রেফতার ১ রোজা রেখে চুল ও নখ কাটা যাবে? না.গঞ্জের সেই সিংহামের হাতে বন্দি হলেন মামুনুল রোযাও কমছেনা তরমুজ ও আনারসের দাম সোনারগাঁও পৌরসভার কাউন্সিলর তপন গ্রেফতার লক ডাউন বাস্তবায়নে কঠোর অবস্থানে কাঁচপুর হাইওয়ে পুলিশ সোনারগাঁয়ে করোনা আক্রান্ত ১৪, মৃত্যু ১ সুস্থ ৪০ সোনারগাঁয়ে করোনা আক্রান্ত ১৪, মৃত্যু ১ সুস্থ ৪০ চেয়ারম্যান প্রার্থী সোহাগ রনি’র উদ্যোগে মাস্ক ও ইফতারি বিতরন রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় মুক্তিযুদ্ধা ওবায়দুল হকের দাফন সোনারগাঁয়ে একদিনে করোনায় মৃত্যু ৩, আক্রান্ত ১১ সনমান্দিতে দুই ডাকাত আটক বন্দরে চোরাই গার্মেন্ট পণ্য উদ্ধার, গ্রেপ্তার-২ আগুনে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারকে ইঞ্জিনিয়ার মাসুমের আর্থিক সহায়তা প্রদান কঠোর লকডাউনের ২য় দিনের জনজীবন স্বাভাবিক পিরোজপুরে ৪টি বসত ঘরে আগুন মাহে রমজান উপলক্ষে সনমান্দী ইউনিয়নে অসহায়দের মাঝে ত্রান বিতরণ সোনারগাঁয়ে ট্রাক চাপায় মামা-ভাগ্নে নিহত মৃত শিশুকে কবর দেওয়াকে কেন্দ্র করে শিশুর স্বজনদের বাড়ীতে হামলা
সোনারগাঁয়ে টাকার অভাবে পড়াশুনা বন্ধের পথে মেধাবী জয়নালের

সোনারগাঁয়ে টাকার অভাবে পড়াশুনা বন্ধের পথে মেধাবী জয়নালের

Logo


নিউজ সোনারগিঁ২৪ডটকমঃ টাকার অভাবে বন্ধ হওয়ার পথে সোনারগাঁও পৌরসভার গোয়ালদী গ্রামের মেধাবী ছাত্র মো. জয়নাল উদ্দিনের পড়াশুনা। দরিদ্র পিতার সন্তান জয়নাল উদ্দিন ২০১৬ সালে সোনারগাঁ জি আর ইনস্টিটিউশন স্কুল এন্ড কলেজ থেকে বিজ্ঞান বিভাগে জিপিএ ৫ পেয়ে কৃতিত্বের সাথে এস এস সি পরীক্ষায় উত্তীর্ন হয়। পরে সে স্থানীয় সোনারগাঁ ডিগ্রী কলেজে এইচ এস সি তে ভর্তি হয়। তার দরিদ্র পিতার পক্ষে পড়াশুনা চালিয়ে নেয়া দূরুহ হয়ে পড়েছে। চার ভাই বোনের মধ্যে জয়নাল উদ্দিন সবার বড়। বাকী তিন বোনও পড়াশুনা করছে। এক বোন এইচ এস সি প্রথম বর্ষ, আরেক বোন এ বছর এস এস সি পরীক্ষা দিয়েছে সবার ছোট বোন ক্লাস টুতে পড়ে। জয়নালের পিতা কৃষি কাজ করে সংসার চালায় পাশাপাশি চার সন্তানকে পড়াশুনা করাচ্ছেন। তার পক্ষে সন্তানদের ভরন পোষন দিয়ে পড়াশুনা চালিয়ে নেয়া অসম্ভব হয়ে পড়েছে।
মো. জয়নাল উদ্দিন জানান, আমার বাবা অনেক কষ্ট করে সব ভাই বোনকে পড়াশুনা করাচ্ছেন। সংসার চালিয়ে এখন আর তিনি পড়াশুনার খরচ জোগার করতে পারছে না। আমি পড়াশুনার ফাঁকে ফাঁকে রাজমিস্ত্রির কাজ করে পড়াশুনার খরচ চালানোর চেষ্টা করছি কিন্তু এতে পড়াশুনার ক্ষতি হয় তাই সব সময় কাজ করতে পারি না।

মো. জয়নাল উদ্দিনের বাবা মো. হানিফ জানান, আমার ছেলে ছোট বেলা থেকেই খুব মেধাবী। টাকার অভাবে আমার ছেলের পড়াশুনা বন্ধ হয়ে যাবে এটা ভাবলেই খুব কষ্ট হয়। ছেলেটা তার পড়াশুনা চালিয়ে যেতে পারলে একদিন সংসারের হাল ধরতে পারতো। তার বোনদের পড়াশুনাও বন্ধ হতো না।


Logo

Website Design & Developed By MD Fahim Haque - Web Solution