• সকাল ১১:০০ মিনিট বুধবার
  • ৯ই মাঘ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
  • ঋতু : শীতকাল
  • ২২শে জানুয়ারি, ২০২০ ইং
এই মাত্র পাওয়া খবর :
সোনারগাঁয়ের বারদীতে এসএসসি পরীক্ষার্থীর মৃত্যু সোনারগাঁয়ে বাড়ছে অপহরন করে মুক্তিপন আদায় সোনারগাঁয়ে সিসি রাস্তা ঢালাই কাজের উদ্বোধন  সিটি নির্বাচনে মান্নানের ব্যাপক গণসংযোগ (ভিডিও) সোনারগাঁয়ে বালু উত্তোলন: মূল হোতারা ধরা ছোঁয়ার বাইরে, ১৩ নিরিহ বালু শ্রমিকের জেল সোনারগাঁয়ে মোবাইল ফোনে বিয়ে: বছর না ঘুরতেই স্বর্ণালঙ্কার নিয়ে গৃহবধুর পলায়ন অর্ধ সত্য জাদুঘরের যানজট নিয়ে এলাকাবাসীর ক্ষোভ, প্রশাসনে স্বজন প্রীতির অভিযোগ মেঘনা শিল্প নগরী স্কুল অ্যান্ড কলেজে প্রীতি ক্রিকেট টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত মেঘনায় মাদ্রাসা শিক্ষার্থীদের মধ্যে কম্বল বিতরণ সোনারগাঁ থেকে পাঁচ লাখ টাকাসহ নিখোঁজ ব্যবসায়ী অচেতন অবস্থায় উদ্ধার সোনারগাঁয়ে প্রতিপক্ষের হামলায় মামা ভাগিনা আহত সোনারগাঁয়ে ৫লাখ টাকাসহ ব্যবসায়ী নিখোঁজ সোনারগাঁয়ে মেয়ে অপহরণের অভিযোগে পিতার মামলা ৩রা ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হবে এসএসসি পরীক্ষা: শিক্ষা মন্ত্রণালয় সোনারগাঁয়ে ফুটওভার ব্রিজ ব্যবহারে অনীহা পথচারীদের সোনারগাঁয়ে পাঁচানী শান্তিনগর মাদ্রাসায় কৃতি শিক্ষার্থীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ বউ ৪৩টি উন্নয়ন কাজের উদ্বোধন করেলেন এমপি খোকা গুচ্ছগ্রামের গাছপালা কেটে জমি দখলের অভিযোগ আল-মোস্তফার গ্রুপের বিরুদ্ধে
ওজন কমাতে অ্যালো ভেরা

ওজন কমাতে অ্যালো ভেরা

নিউজ ডেস্ক: অ্যালো ভেরার নির্যাস শরীরের বিষাক্ত উপাদান দূর করতে পারে যা ওজন কমানোতে সহায়ক। স্বাস্থ্যবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন অবলম্বনে ওজন কমাতে অ্যালো ভেরা ব্যবহারের পাঁচটি পন্থা সম্পর্কে জানানো হল।

অ্যালো ভেরার সঙ্গে লেবুর রস
প্রতিদিন সকালে খালি পেটে অ্যালো ভেরা ও লেবুর রস মিশিয়ে জুস তৈরি করে পান করলে শরীর থেকে বিষাক্ত উপাদান বের করে দিতে সাহায্য করে।

অ্যালো ভেরা এবং আদার চা
দুপুর বেলার জন্য খুব ভালো পানীয় এটা। আদাতে আছে ফাঙ্গাস ও ব্যাক্টেরিয়া রোধী উপাদান। এটা হজমে সাহায্য করে ও শরীরের পানি জমার পরিমাণ কমায়। অ্যালো ভেরা ও আদা একসঙ্গে শরীরের চর্বি কমাতে সহায়তা করে।

কমলা, স্ট্রবেরি এবং অ্যালো ভেরার স্মুদি
স্ট্রবেরিতে ক্যালরির পরিমাণ কম এবং এটা ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য নিরাপদ। এটা ওজন কমাতেও সহায়তা করে। স্ট্রবেরি খুব ভালো পরিষ্কারক। কমলা, অ্যালো ভেরা ও স্ট্রবেরি একসঙ্গে খুব ভালো অ্যান্টি অক্সিডেন্টের কাজ করে এবং ওজন কমাতেও সাহায্য করে।

হজমে সাহায্য করে
এই জুসে ‘ল্যাক্সাটিভ’ উপাদান থাকায় হজম প্রক্রিয়া সক্রিয় হয়। এটা প্রতিরক্ষী ব্যাক্টেরিয়াকে সক্রিয় রাখে এবং পয়ঃক্রিয়ায় সহায়তা করে। পেটে আলসারের সমস্যায় অ্যালো ভেরা জুস পানে উপকার পাওয়া যায়।

সংক্রমণ দূর করতে
এর প্রদাহরোধী উপাদান পেট পরিষ্কারের মাধ্যমে নানান সমস্যা দূর করে এবং সংক্রমণ দূর করতে সাহায্য করে।

বিষাক্ত পদার্থ দূর করতে
অ্যালো ভেরার রস শরীরের বিষাক্ত উপাদান দূর করে। এতে থাকা পটাশিয়াম যকৃত ও কিডনিকে পরিশোধনের কাজে সহায়তা করে।

অ্যালো ভেরার জুস খাওয়ার উপযুক্ত সময়
অ্যালো ভেরার পানীয় খাওয়ার কোনো ক্ষতিকারক দিক নেই। তবে অবশ্যই পরিমিত পরিমাণে গ্রহণ করতে হবে। এক গ্লাস পানিতে ৫০ মি.লি. অ্যালো ভেরা জুস মিশিয়ে পান করা উচিত। অতিরিক্ত পান নেতিবাচক ভূমিকা রাখতে পারে যেমন- ইলেক্ট্রলাইট, পেশির টান, বমি বমিভাব এবং ডায়ারিয়ার মতো সমস্যা দেখা দিতে পারে।
যদি এ ধরনের কোনো সমস্যা দেখা দেয় তবে চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।

নিষেধ যাদের
‘ইন্ডিয়ান জার্নাল অব ডার্মাটোলজি’র তথ্য অনুযায়ী, গর্ভবতী এবং যে সকল মা সন্তানকে বুকের দুধ খাওয়ান তাদের অ্যালো ভেরার জুস খাওয়া উচিত নয়। এছাড়া অনেকের অ্যালার্জির সমস্যা থাকে। এই জুস খাওয়ার পরে কোনো রকমের অ্যালার্জির সমস্যা দেখা দিলে তা আর খাওয়া ঠিক হবে না।

এই নিউজটি শেয়ার করুন...

Website Design & Developed By MD Fahim Haque - Web Solution