• বিকাল ৪:৫৪ মিনিট সোমবার
  • ১৩ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
  • ঋতু : বসন্তকাল
  • ২৬শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
এই মাত্র পাওয়া খবর :
এমপি’র হস্তক্ষেপে হকারমুক্ত হলো ফুটওভার ব্রিজ সোনারগাঁয়ে অটোচালক রজ্জব হত্যার প্রধান আসামী আটক সোনারগাঁয়ের কাপড় ব্যবসায়ীর লাশ বুড়িগঙ্গায় উদ্ধার মেঘনা সেতু ফুট ওভারব্রিজের রেলিংয়ের সাপোর্টিং খুটি কেটে নিলো সওজের কর্মীরা সোনারগাঁয়ে স্মার্ট লুকস জেন্টস পার্লার এন্ড স্পা সেন্টার উদ্বোধন সোনারগাঁ সরকারী ডিগ্রী কলেজের হিসাব রক্ষককে পিটিয়ে আহত সোনারগাঁয়ে অবৈধ গ্যাস বোতলজাত করার সময় অগ্নিদগ্ধ হয়ে ১ ব্যক্তির মৃত্যু হঠাৎ ওসমান শিবিরে ধাক্কা সোনারগাঁও পৌরসভায় বৃদ্ধ শ্বশুরকে কুপিয়ে জখম করলো ছেলের বউ আমার দেয়ার কিছু নেই কিন্তু আপনাদের নেয়ার অনেক কিছু আছে..এমপি কায়সার হাসনাত আদমপুর বাজারে হাটার রাস্তা সরু করে অবৈধ দোকান নির্মাণ আনন্দবাজার হাটের ইজারা পেলেন প্যানেল চেয়ারম্যান নবী হোসেন সোনারগাঁয়ে ৭ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামী গ্রেপ্তার কাঁচপুরে গ্রেপ্তার এড়াতে ৬ তলা থেকে লাফিয়ে পড়লেন যুবক জামপুরে মাহফুজুর রহমান কালামের উঠান বৈঠক সোনারগাঁয়ের কান্দারগাঁয়ে ১২ বছরে ৪ খুন, আহত-৫০ এলাকা ছাড়া ৫০ পরিবার পিরোজপুর কান্দারগাঁয়ে দফায় দফায় সংঘর্ষে ১ জনকে কুপিয়ে হত্যা জনগণের দোয়া চেয়ে গণসংযোগ করেন উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী মোহাম্মদ আলী হায়দার এসএসসি পরীক্ষার্থী অভিভাবকদের বসার জন্য সোহাগ রনি’র ছাউনী নির্মাণ এসএসসি পরীক্ষার্থী অভিভাবকদের বসার জন্য সোহাগ রনি’র ছাউনী নির্মাণ
লক ডাউন মানছেনা সোনারগাঁবাসী বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা

লক ডাউন মানছেনা সোনারগাঁবাসী বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা

Logo


নিউজ সোনারগাঁ টুয়েন্টিফোর ডটকম: দিন যত গড়াচ্ছে ঘর থেকে বের হয়ে যাচ্ছে সোনারগাঁবাসী। প্রয়োজনে-অপ্রয়োজনে ভীড় করছে উপজেলার গুরত্বপুর্ন স্থান ও হাট-বাজারগুলোতে। বর্তমানে প্রশাসনের নজরদারী না থাকার কারনে প্রশাসনের নিষেধ উপেক্ষা করে খুলতে শুরু করেছে মার্কেট ও ফুটপাতের দোকানপাট। ফলে দিন যত গড়াচ্ছে করোনা সংক্রমনের হার দিনে দিনে জ্যামিতিক হারে বাড়ছে। যে ভাবে করোনা মহামারি রূপ নিচ্ছে প্রশাসন যদি কঠোর নজরদারী না করেন তাহলে সোনারগাঁ যুক্তরাষ্ট্র ও ইটালীর মতো ভয়াবহ অবস্থা হতে পারে বলে মনে করছেন সচেতন নাগরিকরা।

জানা গেছে, বাংলাদেশের অন্যান্য জেলার তুলনায় করোনার আক্রান্তের হার নারায়ণগঞ্জে সবচেয়ে বেশী। এমতাবস্থায় সোনারগাঁকে করোনা মুক্ত রাখতে লক ডাউন চেয়ে প্রধানমন্ত্রীর কাছে আহবান করেন সোনারগাঁয়ের সংসদ সদস্য লিয়াকত হোসেন খোকা। পরে গত ৭ এপ্রিল নারায়নগঞ্জ জেলাকে লক ডাউন করেন আইএসপিআর। লক ডাউনের কিছুদিন প্রশাসনের নজরদারী জোরদার করার কারণে মানুষ অকারণে ঘর থেকে বের হওয়া বন্ধ করে দেয়। সোনারগাঁ উপজেলা গুরুত্বপুর্ন স্থানগুলোতে সেনাবাহিনী ও পুলিশের অভিযানের কারণে করোনা সংক্রমনের হার নারায়ণগঞ্জের অন্যান্য উপজেলার ন্যায় শুন্য কোঠায় অবস্থান করে। সেই সাথে উপজেলা প্রশাসন সপ্তাহিক হাট বাজারগুলো বন্ধ করে দিয়ে গুরুত্বপুর্ন বাজারগুলোকে সামাজিক দুরত্ব নিশ্চিত করতে বিস্তৃত জায়গায় স্থানান্তর করে। লক ডাউনে সাধারণ মানুষকে ঘরে রাখতে উপজেলা প্রশাসন ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে জরিমানা করা হয় বিভিন্ন স্থানে। এতে মানুষ ভয়ে জরুরী কাজ ছাড়া ঘরে থাকতে বাধ্য হয়।

এদিকে গত ২/৩ সপ্তাহ ধরে প্রশাসনের নির্দেশ অমান্য করে ইজারাদাররা হাট-বাজারগুলো বসিয়ে লক ডাউন ভাঙ্গতে শুরু করে।
তবে দিন যত গড়াতে তাকে প্রশাসনের নির্দেশ অমান্য করে রাস্তায় নামতে শুরু করে মানুষ। বর্তমানে সোনারগাঁয়ের প্রশাসনের নজরদারী না থাকায় কারণে অকারনে উপজেলার গুরুত্বপুর্ণ স্থানগুলোতে ভীড় করছে, খুলতে শুরু করেছে ফুটপাত ও মার্কেটগুলোর দোকানপাট। এদিকে সোনারগাঁয়ে প্রথম করোনা রোগী সনাক্ত হয় গত ১৩ এপ্রিল বৈদ্যেরবাজার এলাকায়। এরপর উপজেলার বিভিন্ন স্থানে মানুষ নিজেদের তাগিদে লক ডাউন মানতে শুরু করে। নিজ উদ্যোগে এলাকায় বাহিরে লোক প্রবেশের উপর নজরদারী বাড়ানোর পাশাপাশি মহল্লার রাস্তাঘাট বন্ধ করে দেয়। মাঝখান দিয়ে কয়েকদিন সংক্রমনের হার কিছুটা কম থাকায় মানুষ সে লক ডাউন অমান্য করে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসতে শুরু করে। লক ডাউন অমান্য করে মানুষ ঘর থেকে বাহিরে আসার পর থেকে এ সপ্তাহে করোনা সংক্রমনের সংখ্যা জ্যামিতির হারে বাড়তে শুরু করেছে। গত ১৩ তারিখ থেকে আজ ২৪ এপ্রিল পর্যন্ত সোনারগাঁয়ে করোনা আক্রান্তর সংখ্যা ৩০ জনে দাড়িয়েছে। এরমধ্যে ২ জন মারা গেছেন। তবে, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের হিসেব অনুযায়ী ৩০ জনের সংখ্যা গত ২৪ এপ্রিলের নমুনা দেয়া পর্যন্ত। বর্তমান হিসেব অনুয়ারী এর সংখ্যা আরো অনেক বাড়তে পারে বলে আশংকা করছেন স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা।

এ ব্যাপারে সোনারগাঁ উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা জানান, সোনারগাঁবাসীকে লক ডাউন মেনে ঘরে রাখতে প্রশাসন অনেক আগে থেকেই কাজ করছে। কিন্তু সোনারগাঁয়ের কোথাও মানুষ লক ডাউন মানছেনা। আইন মানতে বিভিন্ন স্থানে মানুষকে অর্থদন্ডও দেয়া হয়। এরপর প্রশাসন একদিক দিয়ে অভিযান চালিয়ে চলে আসে আরেক দিন দিয়ে মানুষ আসে ভ্রাম্যমান আদালত দেখতে। এমতাবস্থায় তাদের বিরুদ্ধে কঠোরও হওয়া যাচ্ছেনা। এছাড়া গার্মেন্টগুলো খুলে দেয়ায় আরো বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হচ্ছে।


Logo

Website Design & Developed By MD Fahim Haque - Web Solution